নিয়ম না মেনে রাস্তা পার হলে জরিমানা: মেয়র আতিক


টাইমস ডেস্ক
Published: 2019-11-18 20:37:55 BdST | Updated: 2019-12-14 03:15:09 BdST

নিয়ম না মেনে রাস্তা পারাপারে পথচারীর বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম।

সোমবার (১৮ নভেম্বর) দুপুরে রাজধানীর আসাদ এভিনিউয়ে গ্রীন হেরাল্ড ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের সামনে ডিজিটাল পুশ বাটন পর্যবেক্ষণ এবং ট্রাফিক সচেতনতা কার্যক্রমের সময় মেয়র এ কথা বলেন।

এ সময় আতিকুল ইসলামের সঙ্গে নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের চেয়ারম্যান ইলিয়াস কাঞ্চন ও স্থানীয় কাউন্সিলরসহ ডিএনসিসি ও পুলিশের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

উপস্থিত সবাইকে নিয়ে মেয়র নতুন সড়ক আইনের বিষয়ে জনসচেতনতা বাড়াতে লিফলেট বিতরণ করেন।

মেয়র বলেন, ‘সড়ক আইন-২০১৮ এর উদ্দেশ্য রাজস্ব আদায় নয়। সড়কে শৃঙ্খলা আনাই মূল লক্ষ্য। মানুষ যেন আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হয় এবং আইন মেনে চলে সে জন্য শাস্তি এবং জরিমানা বাড়িয়ে নতুন আইন করা হয়েছে’।

তিনি বলেন, ‘সারা বিশ্বে কঠোরভাবে আইন মানা হয়। সবখানে আইনের প্রতি শ্রদ্ধা রয়েছে। এর মূল কারণ আইন অমান্য করলে কঠিন শাস্তি এবং বড় অঙ্কের জরিমানা গুনতে হয়। এ ছাড়া আমাদের দেশেও সেনানিবাস এলাকায় কেউ আইন ভঙ্গ করে না। সেখানে আইন ভঙ্গ করলে বড় ধরনের জরিমানা ও শাস্তি পেতে হয়। কিন্তু ওই একই চালক সেনানিবাস এলাকার বাইরে আসলে আইন অমান্য করে। তাই এর জন্য সুষ্ঠু ট্রাফিক ব্যবস্থাপনায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ব্যাপকভাবে সচেতনতা বাড়াতে হবে। শিক্ষার্থী এবং তার অভিভাবকদের সচেতন করতে হবে।’

উত্তরা এলাকায় তিন শ অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ : মাসখানেক আগে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করে সর্বসাধারণের চলাচলের স্থান উন্মুক্ত করা হয়েছে। কিন্তু সেসব স্থান অল্প কিছুদিনের মধ্যেই দখল হয়ে আগের অবস্থায় ফিরে আসে। তাই পুনরায় উচ্ছেদ অভিযান চালিয়ে এমন তিন শতাধিক স্থাপনা গুঁড়িয়ে দিয়েছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি)।

সোমবার উত্তরার ১, ৩, ৫, ৬, ৭, ৯, ১৩ ও ১৫ নম্বর সেক্টরে এসব অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করে ডিএনসিসির ভ্রাম্যমাণ আদালত।

অভিযান পরিচালনা করেন ডিএনসিসির অঞ্চল-১ এর নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জুলকার নায়ন।

এ ছাড়া ফুটপাত ও সড়কে নির্মাণসামগ্রী রাখায় ৭ নম্বর সেক্টরের আরএমসি হাসপাতালকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

টিআর/ ১৮ নভেম্বর ২০১৯