ইডেনের ছাত্রী আঁখিমনির স্বপ্নপূরণে এগিয়ে এলেন ওবায়দুল কাদের


টাইমস প্রতিবেদক
Published: 2017-12-05 21:51:05 BdST | Updated: 2017-12-14 08:12:47 BdST

টাঙ্গাইলের সখীপুরের অসচ্ছল পরিবারে আঁখিমনির জন্ম। দু’পায়ে ত্রুটি নিয়ে জন্ম নেওয়া মেয়েটির দীর্ঘমেয়াদী চিকিৎসার ব্যয় বহনের সামর্থ্য ছিল না তাদের। এভাবে দুঃসহ যন্ত্রণায় কেটেছে তার ২০ বছর। পা দুটি বাঁকা হওয়ায় স্বাভাবিকভাবে হাঁটতে পারতেন না তিনি।

নিজের পায়ে হাঁটা আঁখিমনির অনেক বড় স্বপ্ন। ইডেন কলেজের ইতিহাস বিভাগের এই ছাত্রীর সেই স্বপ্নটা পূর্ণ হতে যাচ্ছে। আর ক’দিন পরেই নিজের পায়ে ভর দিয়ে হাঁটতে পারবেন তিনি।

আঁখিমনির চিকিৎসার দায়িত্ব নেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। মেয়েটির পায়ে অস্ত্রোপচার পরবর্তী অগ্রগতি দেখতে মঙ্গলবার (৫ ডিসেম্বর) সকালে জাতীয় অর্থোপেডিক ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালে হাজির হন তিনি। প্রায় দেড় বছর ধরে তার চিকিৎসা চলছে এখানে।

সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র তথ্য কর্মকর্তা আবু নাসের স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

চিকিৎসার দায়িত্ব নেওয়ায় মন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন আঁখিমনির মা সালমা খানম। তিনি জানিয়েছেন, ত্রুটি নিয়ে জন্মালেও অদম্য প্রাণশক্তি নিয়ে পড়ালেখায় বরাবরই ভালো করেছেন তার মেয়ে। কিন্তু স্বাভাবিক চলাফেরা করতে পারতেন না। পা দু’টি বাঁকা হওয়ায় প্রতিনিয়ত ভোগান্তিতে পড়ে আঁখিমনি।

স্বাভাবিকভাবে হাঁটতে পারার স্বপ্নটা বাস্তব হতে যাচ্ছে বলে হাসপাতালের শয্যায় আবেগাপ্লুত আঁখিমনি। পড়ালেখা শেষ করার অদম্য ইচ্ছা প্রকাশ করেন তিনি। এ সময় তার পড়ালেখার দায়িত্বও নেন সেতুমন্ত্রী।

এমএস/ ০৫ ডিসেম্বর ২০১৭

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।