কোটা সংস্কারের দাবিতে শাহাবাগে শিক্ষার্থীরা


টাইমস প্রতিবেদক
Published: 2018-02-25 06:13:29 BdST | Updated: 2018-12-10 20:25:30 BdST

বিসিএসসহ সরকারি চাকরি, পদোন্নতি, বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ও বিভিন্ন ক্ষেত্রে কোটা পদ্ধতিতে সংস্কার আনার দাবিতে ফের নতুন করে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে দেশের উচ্চ শিক্ষাঙ্গন। এ নিয়ে সম্প্রতি শাহবাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস, জাতীয় প্রেসক্লাবসহ বেশ কয়েকটি কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ে পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি ও পুলিশের সঙ্গে উত্তপ্ত বাক্য বিনিময়ের ঘটনা ঘটে। একই ইসু্যতে রোববার (২৫ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১১টায় শাহাবাগে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করছে শিক্ষার্থীরা।

তবে কোটা সংস্কার বিষয়ে এখনই সরকার কিছু ভাবছে না বলে জানিয়েছেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ইসমত আরা সাদেক। আর সরকারি কর্ম কমিশনে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে কোটা থেকে প্রার্থী না পেয়ে তারা অনেকবারই মেধা থেকে নিয়োগের জন্য সরকারের কাছে সুপারিশ পাঠিয়েছে। কিছু ক্ষেত্রে তা গৃহীতও হয়েছে। যার ফলে সর্বোচ্চ ৬৭ শতাংশ পর্যন্ত্ম মেধা থেকে নিয়োগ দেয়া সম্ভব হয়েছে। তবে অন্যান্য সূত্রের দাবি বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই কোটার পদ ফাঁকা থাকে এবং পরবর্তীতে বিশেষ বিসিএসের মাধ্যমে তা পূরণ করা হয়।

এবারের আন্দোলনে এর উদ্যোক্তাদের মধ্যে মুক্তিযোদ্ধা, বুদ্ধিজীবীসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষকেও সম্পৃক্ত করার চেষ্টা দৃশ্যমান হচ্ছে। এরই মধ্যে অর্ধ শতাধিক মুক্তিযোদ্ধা এ আন্দোলনের সঙ্গে সহমত পোষণ করে কোটাকে সহনীয় মাত্রায় নামিয়ে আনার দাবি করেছে। বুদ্ধিজীবী ও পেশাজীবীরাও নানাভাবে এ আন্দোলনের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করছেন বলে আয়োজকরা জানিয়েছে।

এসএম/ ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।