ডিজিটাল হলো ৬ষ্ঠ শ্রেণির পাঠ্য বই


টাইমস নিউজ
Published: 2018-09-21 20:51:48 BdST | Updated: 2018-12-12 05:47:18 BdST

এবার মাধ্যমিক স্তরের পাঠ্যবই ডিজিটাল করার উদ্যোগ নিলো সরকার। এর মাধ্যমে ইন্টারনেট থেকে ডাউনলোড করে পড়ার সুযোগ পাবে শিক্ষার্থীরা। প্রাথমিকভাবে ৬ষ্ঠ শ্রেণির ১৬টি পাঠ্যপুস্তক ডিজিটাল করা হয়েছে। যা পর্যায়ক্রমে অন্যান্য ক্লাসেও করা হবে।

বৃহস্পতিবার (২০ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে আয়োজিত ডিজিটাল পাঠ্যপুস্তক উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ এসব বিষয় তুলে ধরেন।

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. সোহরাব হোসাইন, কারিগরি ও মাদরাসা বিভাগের সচিব মো. আলমগীর, এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক- এডিবি’র কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন পার্কাস।

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশে ডিজিটাল পাঠ্যপুস্তক একটি বাস্তবতা। এর মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা সহজপাঠের সুযোগ পাবে। বর্তমানে ৬ষ্ঠ শ্রেণির বই ডিজিটাল করা হয়েছে। পর্যায়ক্রমে সব পাঠ্যপুস্তক ডিজিটাল করা হবে।

শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, কেবল আধুনিক প্রযুক্তি আর মোটা বই তুলে দিলে শিক্ষার্থীরা ভালো মানুষ হবে না, এ জন্য শিক্ষক ও অভিভাবকদের সচেতন হবে। ক্লাসের বাইরে সন্তানেরা কি করে, কোথায় যায় সেটিও নজরে রাখতে হবে।

শিক্ষকতা পেশাকে সম্মানজনক উল্লেখ করে তিনি বলেন, সমাজের শিক্ষকতা পেশার চাইতে সম্মানজনক আর কোনও পেশা নেই। তাদের প্রচেষ্টায় আমাদের সন্তানরা আধুনিক ও মানসম্মত মানুষ হিসেবে গড়ে উঠবে।

অনুষ্ঠানে জাতীয় পাঠ্যপুস্তক বোর্ড-এনসিটির চেয়ারম্যান প্রফেসর নারায়ন চন্দ্র সাহা বলেন, পাঠ্যপুস্তক ডিজিটাল করাটা কঠিন বিষয়। সবার প্রচেষ্টা ও জ্ঞান দিয়ে তা করা সম্ভব হয়েছে। আমরা মানসম্পন্ন বই উপহার দেওয়ার চেষ্টা করেছি।

তিনি বলেন, ধর্মীয় পাঠ্যপুস্তক ডিজিটালাইজ করাটা কঠিন বিষয়, ধর্মীয় বিষয়ে ছবি ও শব্দ যুক্ত করতে আমাদের অনেক সচেতনতা অবলম্বন করতে হয়েছে। তারপরও যদি কোথাও কোন ভুল ধরা পড়ে তবে তা বিবেচনায় নিয়ে সংশোধন করা হবে বলে তিনি জানান।

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষার মহাপরিচালক অধ্যাপক মাহাবুবুর রহমানের সভাপত্বিতে অনুষ্ঠানে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা ও অধিদফতরের কর্মকর্তা, বিভিন্ন প্রকল্পের কর্মকর্তা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, টিচিং কোয়ালিটি ইমপ্রুভমেন্ট-২ প্রকল্পের আর্থিক সহায়তা এবং ব্রাকের কারিগরি সহায়তায় এই ১৬টি আইডিটি তৈরি করা হয়েছে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।