সম্ভ্রম নারীর দেহে নয় মননে


Dhaka
Published: 2020-03-08 21:47:29 BdST | Updated: 2020-04-03 16:30:44 BdST

উচ্চশিক্ষিত, অর্ধশিক্ষিত , অশিক্ষিত তথা প্রায় সকল মানুষের ধারণায় নারীরা যৌন নির্যাতনের শিকার হলে সেই নারীর ইজ্জত বা সম্ভ্রমহানি হয় ।

" যুদ্ধে ত্রিশ লক্ষ শহিদ ও দুই লক্ষ মা-বোনের ইজ্জতের বিনিময়ে আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি " বাক্যটি ছোটবেলা থেকেই শুনতে শুনতে আমাদের মগজে একদম আটকে গেছে । আমরা এইটাই বুঝি একজন নারী নিপীড়নের শিকার হলে তার ইজ্জত, সম্ভ্রম বা সম্মান শেষ হয়ে যায় আর যেই পুরুষ নিপীড়ন করে তার ইজ্জৎ বা সম্ভ্রম নিয়ে কোনো প্রশ্নই হয় না!

"সম্ভ্রম বা ইজ্জত নারীর যোনিতে" এই বিশ্রী , ভুল ধারণা থেকে আমাদের বের হতে হবে। আমাদের বুঝতে হবে , সম্ভ্রম বা ইজ্জত কোনো ঠুনকো, লিঙ্গভিত্তিক ধারণা নয় যে অন্য এক বিকৃত মনোভাবসম্পন্ন মানুষের অপকর্মের ফলে আমার সম্ভ্রম শেষ হয়ে যাবে কারণ আমি নারী।

আমাদের বের হতে হবে এই ধারণা থেকে যে নারীরা পুরুষদের চেয়ে কম শক্তিশালী। অন্তত আমার চারপাশের উল্লেখযোগ্য সংখ্যক নারীর কথা বিবেচনা করলে দেখা যায় - বেশিরভাগ পুরুষই যেই কাজটা সাধারণভাবেই করতে পারে সেই একই কাজ একটা মেয়ের করতে হয় হাজারো প্রশ্ন, প্রতিকূলতার সম্মুখীন হয়ে।

সমাজের চিত্রে কিছুটা পরিবর্তন আসলেও মেয়েদের শুনতে হয়, "হাজার হোক তুমি মেয়ে, এই কাজ তুমি করতে পারবা না ", "এই কাজ ছেলেদের জন্য উপযুক্ত । তুমি কেমনে করবা?" , "মেয়ে মানুষ কেন এইটা করবে সেইটা করবে " ইত্যাদি ইত্যাদি হাজারো নেতিবাচক কথাবার্তা।
বহু প্রতিকূলতার সম্মুখীন হয়ে, সমাজের লিঙ্গভিত্তিক বৈষম্যমূলক প্রথাকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে যারা দূর্বার গতিতে এগিয়ে চলছে, নিজের সার্মথ্য প্রমাণ করে চলছে তাদেরকে আপনি দুর্বল কীভাবে মনে করেন?

শারিরীকভাবে অপেক্ষাকৃত কম শক্তিশালী হলেও মানসিকভাবে এইসকল নারীরা পুরুষদের তুলনায় বহুগুণ শক্তিশালী ।

আইন করে মহিলা সীটে পুরুষ বসা নিষিদ্ধ করা গেলেও মানসিকতা পরিবর্তনের জন্য প্রয়োজন নারী-পুরুষ উভয়ের সচেতনতা। এমনভাবে অধিকার, দায়িত্বের ব্যাপারে সচেতন হয়ে উঠুন যাতে করে আর মহিলা বলে সংরক্ষিত সীটে না বসেও নারীরা নিরাপদে বাড়ি পৌছুতে পারে।

শুধু পুরুষ নয় বরং নারী হিসেবে আমাদেরও উচিত অন্য নারীর প্রতি সমীহ দেখানো । আমরা বেশিরভাগ নারীই অন্য নারীকে সম্মান দিতে শিখিনি এখনো।

" তুই তো মেয়ে মানুষ।এটা তুই করতে পারবি না " -আপনার বাচ্চাটিকে এটা না, বরং আসুন বাচ্চা অথবা ছোট বোনটাকে শেখাই "মানুষ চেষ্টা করলে কিছুই অসম্ভব নয়! তুইই পারবি।এগিয়ে যা"

দেশকে ভালোবাসেন? আসুন কড়া হাতে, দৃঢ় ভাবে প্রতিহত করি এই লিঙ্গভিত্তিক সংস্কৃতি আর ভয়ানক মানসিকতার । নিপীড়ন হতে দেবো নার সঙ্গে সঙ্গে নিপীড়ক তৈরি হতে দেবো না, এজেন্ডায় আসুন। একটা গোটা দেশের বিশাল অংশ নারীকে টুল ভাবছে। আসুন, তাদের এই ভয়ানক ভাবনার বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াই। তৃণমূলস্তরে এই কুৎসিত ভাবনার বিনাশ না ঘটলে এ সমাজ কখনোই এগোতে পারবে না।

আসুন শিশুদের শেখাই একেবারে শুরু থেকে, যা কিছু খারাপ সংস্কৃতিকে পুষ্ট করে, আসুন রুখে দাঁড়াই সেই সবটার বিরুদ্ধে। এ সমাজ, এই দেশ, এই পৃথিবী মানুষের বসতি, হাজার অগ্রহণযোগ্য মানুষের লীলাক্ষেত্র নয়। আসুন প্রমাণ করি।

লিখেছেন ফাতিমা তাহাসিন , এজিএস শামসুননাহার হল সংসদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়