দুটি একাডেমিক প্রোগ্রামে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত ‘পাঠশালা’


টাইমস ডেস্ক
Published: 2018-02-16 05:19:11 BdST | Updated: 2019-08-20 05:41:25 BdST

দক্ষিণ এশিয়ার অন্যতম ফটোগ্রাফি ও চলচ্চিত্র শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে স্বীকৃত পাঠশালা সাউথ এশিয়ান মিডিয়া ইন্সটিটিউট এবার দুটি একাডেমিক প্রোগ্রামের মাধ্যমে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত ইন্সটিটিউট হিসেবে একাডেমিক প্রোগ্রাম শুরু করছে।

একাডেমিক প্রোগ্রাম দুটি হলো: চার বছর মেয়াদি ব্যাচেলর অফ ফটোগ্রাফি এবং দেড় বছর মেয়াদি পোস্ট গ্রাজুয়েশন ডিপ্লোমা ইন ফিল্ম এন্ড টেলিভিশন।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর ধানমন্ডির পাঠশালা ইন্সটিটিউটে এ উপলক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

পাঠশালার চেয়ারম্যান ড. শহিদুল আলম সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেন। পরে তিনি ইন্সটিউটটির শুরুর ইতিহাস সহ বর্তমান ও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনার কথা জানান।

তিনি বলেন, পাঠশালা প্রায় ১৯ বছর ধরে বিভিন্ন মেয়াদে আলোকচিত্র ও চলচ্চিত্র শিক্ষা দিয়ে আসছে। আজ ১৯ বছর পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে দুটি একাডেমিক প্রোগ্রামে অধিভুক্ত হতে পেরে আরেকটি অধ্যায় রচিত হলো। আমাদের এই অর্জন বহুদিনের চেষ্টার ফসল। আমরা মনে করছি এর মাধ্যমে তরুণ প্রজন্ম ফটোগ্রাফিতে আরো বেশি উদ্বুদ্ধ হবে।

সরকারীভাবে কয়েকটি ইন্সটিটিউটে ফিল্ম ও টেলিভিশনের কোর্স করানো হয় তাদের থেকে কেমন বৈচিত্র্য পাঠশালায় থাকবে জানতে চাইলে ড. শহিদুল আলম বলেন, আমাদের ব্রডকাস্ট স্টুডিও, ভিডিও এডিটিং ল্যাব, ক্যামেরা, লাইট ও সাউন্ড ইকুয়েপমেন্ট সুবিধা অনেক শক্তিশালী ভূমিকা রাখবে বৈচিত্রের জন্য।শিক্ষার্থীরা সপ্তাহে প্রতিদিন ও এখানে যে কোন সময় লাইব্রেরির কাজ সহ প্রয়োজনীয় শিক্ষা ব্যবস্থা গ্রহন করতে পারবে।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্য আলোচকরা বলেন, আমাদের এ আনন্দের দিনটি শুধু এখন দেশে সীমাবদ্ধ নেই, এটা দক্ষিণ এশিয়ার আনন্দে রূপ নিয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে প্রতি ব্যাচে ২৫ জন শিক্ষার্থী নিয়ে প্রথম ব্যাচের ক্লাস শুরু হবে চলতি বছরের জুলাই মাসে। ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে এপ্রিলে।

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন, পাঠশালার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আবীর আবদুল্লাহ, ফটোগ্রাফি বিভাগের প্রধান খন্দকার তানভীর মুরাদ, ফিল্ম এন্ড টেলিভিশন বিভাগের প্রধান খ ম হারুন, শিক্ষক মুনিরা মোরশেদ মুন্নি এবং পরিচালনা পর্ষদের সদস্য তানজিম ওয়াহাব।

এসএম/ ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।