বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কমিটিতে ৪ উপাচার্য


টাইমস অনলাইনঃ
Published: 2017-10-10 17:51:22 BdST | Updated: 2017-12-12 16:33:10 BdST

বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের শিক্ষা ও মানব সম্পদ উপ-কমিটিতে সদস্য হিসেবে স্থান পেয়েছেন দেশের ৪ টি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যগণ।

এই চার উপাচার্য হলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক আখতারুজ্জামান খান, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক মিজানুর রহমান, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি ডাক্তার কামরুল হাসান এবং জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক হারুনুর রশীদ।  

এ চারটি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা তাদের স্বাগত জানাচ্ছেন আবার অনেকে দলীয় পদ নেয়ায় সমালোচনা করছেন। অনেকে বলছেন তাদের এত ছোট পদ দেয়াটা ঠিক হয়নি। তারা আরও সম্মানজনক পদের দাবি রাখেন। 

এছাড়াও আওয়ামীলীগের এই উপকমিটিতে স্থান পেয়েছেন বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ১১ জন শিক্ষক।

শিক্ষার্থীরা বলছেন, দেশের উন্নয়ন ও ভালোভাবে দেশ পরিচালনায় দরকার মেধাবী রাজনীতিক। সুতরাং শিক্ষকদের দলে নেয়ায় দেশের রাজনীতির উন্নতি হবে। সুষ্ঠু ধারা ফিরে আসবে। আবার অনেকে বলছেন, ভিসি পদে থেকে দলীয় পদ নেয়াটা অনৈতিক। কারণ ভিসি পদটি একটি নির্দলীয় পদ। এখানে যদি দলবাজি করা হয় তাহলে শিক্ষা খাতে এর খারাপ প্রভাব পরবে। 

তারা বলছেন, ''ব্যাপারটা যখন শিক্ষা ও মানবসম্পদ বিষয়ে, তখন প্রফেসর দের মূল্যায়ণ করা হচ্ছে। এটাকে ইতিবাচকভাবে নিতে হবে। দলীয় রাজনীতি শিক্ষিতদের দ্বারা পরিচালিত হলে হলে দেশটাও ভাল হবে।''

  

গতকাল সোমবার করা ৪৯ সদস্যের শিক্ষা ও মানবসম্পদ-বিষয়ক উপকমিটির একটি খসড়া তালিকায় তাঁদের নাম রয়েছে। নামের তালিকার নিচে কমিটির আহ্বায়ক  রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক আবদুল খালেক ও সদস্যসচিব আওয়ামী লীগের শিক্ষা ও মানবসম্পদ সম্পাদক শামসুন নাহারের (চাঁপা) সই রয়েছে।

কমিটির সদস্য পদে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছয়জন শিক্ষক, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের চারজন এবং জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষক রয়েছেন।

এ ছাড়া কমিটিতে সাবেক অধ্যাপক, ক্ষমতাসীন দলের সাংসদ ও নেতারা স্থান পেয়েছেন।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন উপাচার্য বলেছেন, তাঁকে আনুষ্ঠানিকভাবে কিছুই জানানো হয়নি। তাই এ নিয়ে এখনই কোনো মন্তব্য করবেন না তিনি।

তবে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য মীজানুর রহমান বলেন, ‘আমি শুনেছি, শিক্ষা ও মানবসম্পদ-বিষয়ক উপকমিটিতে আমাকে রাখা হয়েছে। তবে এটা আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হয়নি। কমিটি হলে নিশ্চয়ই জানানো হবে। তখন এ ব্যাপারে মন্তব্য করা যাবে।’

এমএসএল 

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।