অতিদরিদ্র শিক্ষার্থীর পাশে দাঁড়াচ্ছে ঢাবির আইন বিভাগের শিক্ষকবৃন্দ


ঢাবি টাইমস
Published: 2020-04-10 18:22:35 BdST | Updated: 2020-05-30 08:19:33 BdST

করোনাভাইরাসের কারণে সঙ্কটে পড়া বিভাগের অতি দরিদ্র শিক্ষার্থীদের পাশে দাঁড়াচ্ছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইনবিভাগ।

বিভাগের অধ্যাপক শেখ হাফিজুর রহমান কার্জন, আইন বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, দরিদ্র শিক্ষার্থীদের পাশে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন।

তিনি তার ফেসবুক একটি স্টেটাস এ বলেন-
সুপ্রিয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের শিক্ষার্থীবৃন্দ, আমি ( এবং আমাদের) পক্ষ থেকে সালাম ও শুভেচ্ছা। তোমরা সকলেই জানো যে, সারা বিশ্ব আজ এক মহাবিপদের মধ্যে এবং গভীর এক সঙ্কট অতিক্রম করছে। বাংলাদেশের সামনেও কঠিন সময় অপেক্ষা করছে বলে বিশেষজ্ঞরা আশংকা করছেন। বিশ্ব ও বাংলাদেশের এই মহাবিপদের সময়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের শিক্ষকদের পক্ষ থেকে বলতে চাই যে, আমরা তোমাদের পাশে আছি। আজ আমি মান্যবর মিজান স্যারের (অধ্যাপক ড. মিজানুর রহমান) সঙ্গে কথা বলেছি। শিক্ষার্থীদের পাশে থাকার বিষয়ে মিজান স্যার সদয় সম্মতি দিয়েছেন এবং সামনে অগ্রসর হতে বলেছেন। সম্মানিত বোরহান স্যার (অধ্যাপক ড. বোরহান উদ্দীন খান) ও খুরশীদ স্যার (অধ্যাপক মো. খুরশীদ আলম) ব্যাপারটিকে ইতিবাচক হিসেবে গ্রহণ করেছেন এবং আইন বিভাগ ও আইন অনুষদের পক্ষ থেকে কোন কেন্দ্রীয় ও সমন্বিত উদ্যোগ নেওয়া যায় কি না সেটি খতিয়ে দেখতে বলেছেন। ইকরামও (অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ ইকরামুল হক) এ বিষয়ে যথেষ্ট উৎসাহ দেখিয়েছে। আমরা কি ভাবে কাজ করতে পারি সে বিষয়ে ইকরাম তাগিদ দিয়েছে। এ ধরনের ইতিবাচক আলোচনার প্রেক্ষিতে আমরা আইন বিভাগের শিক্ষকদের পক্ষ থেকে বলতে চাই যে, আমরা আইন বিভাগের সকল শিক্ষক এই মহাবিপদের দিনে তোমাদের পাশে আছি। যদি কোন শিক্ষার্থীর (অথবা তার পরিবারের) কোন ধরনের সহযোগিতা প্রয়োজন হয়, তাহলে সেটি যেন সে বা তারা আমাদের অবহিত করে। আমরা আমাদের সামর্থ্য অনুযায়ী সম্মিলিতভাবে চেষ্টা করব। কাজটি সুষ্ঠুভাবে করার জন্য যদি কারো কোন প্রস্তাব বা পরামর্শ থাকে তাহলে সেটি জানাতে অনুরোধ করছি। এ জন্য আমরা একটি ফেসবুক পাতা খুলতে পারি। কাজটি যথাযথভাবে করার জন্য কয়েকজন স্বেচ্ছাসেবীও প্রয়োজন হবে। প্রত্যেক ইয়ারের সি আরকে (এবং আইন বিভাগের যে সকল শিক্ষার্থী আমার ফেসবুকে আছে) আমি এ পোস্টটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ জানাচ্ছি। কোন শিক্ষার্থী তার/তাদের যে কোনো প্রয়োজন জানাতে যেন কোন রকম কুন্ঠা, লজ্জা বা জড়তা বোধ না করে। আমি (এবং আমাদের শিক্ষকদের) প্রয়োজনের কথা জানালে আমরা সাধ্যমতো চেষ্টা করব, ইনশাআল্লাহ্। আইন বিভাগ ও আইন অনুষদের পক্ষ থেকে কোন কেন্দ্রীয় ও সমন্বিত উদ্যোগ নেওয়া হলে সেটিও যথাসময়ে অবহিত করা হবে। কারো জরুরি কোন প্রয়োজন হলে আমাকে মেসেজ দিয়ে রাখবে। উল্লেখ্য যে, আমার বাম কানে দুবার অপারেশন হওয়াতে আমি বেশি ফোন রিসিভ করতে পারি না। কানে সমস্যা হয়। আশা করছি, এ প্রক্রিয়ায় আরও কয়েকজন শিক্ষক অবিলম্বে যুক্ত হবেন । তাদের সঙ্গেও কথা বলে তোমাদের প্রয়োজনের কথা জানাতে পারবে। আমার সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারবে ফোনে (01726094270, 01983294131), ইমেল এ (email: [email protected]), ও ফেসবুকে। পরিশেষে মহান আল্লাহ্পাক সুবহানা তা’আলার কাছে প্রার্থনা ও দোয়া করছি, পরম করুণাময় আল্লাহ্পাক যেন আমাদের সকলকে হেফাজতে রাখেন। আমরা যেন আমাদের সামষ্টিক চেষ্টায় ও পরম করুণাময়ের রহমতে এ মহাবিপদ কাটিয়ে উঠতে পারি।

উক্ত মহুতি উদ্দেোগ কে স্বাগত জানিয়ে আইন অনুষদ ছাত্রলীগ এর সভাপতি শরিফুল হাসান শুভ বলেন -দেশের এ ক্লান্তিলগ্নে স্যার যে উদ্দোগ গ্রহন করেছেন তা প্রশংসার দাবিদার।তিনি আরও বলেন-সরকারের পাশাপাশি আইন বিভাগের ন্যায় দেশের সকল স্তরের জনগণকে এগিয়ে আশা উচিত করোনা ভাইরাস নামক এ মহামারি থেকে রক্ষা পাবার জন্য।