গান শেখাতে গিয়ে ছাত্রীকে একাধিকবার ধর্ষণ, ১০ বছর পর মামলা


রাজশাহী
Published: 2020-09-17 19:06:07 BdST | Updated: 2020-10-24 15:55:48 BdST

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ সুখরঞ্জন সমাদ্দার ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রের এক কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। ঘটনা দশ বছর আগের হলেও ওই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা দায়ের করেছেন ছাত্রীর বাবা।

গত সোমবার রাতে রাজশাহী নগরের মতিহার থানায় মামলাটি করেন বলে নিশ্চিত করেছেন মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এএসএম সিদ্দিকুর রহমান। অভিযুক্ত রাকিবুল হাসান রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসির সঙ্গীত উপপরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

সূত্রে জানা গেছে, গত ২৩ আগস্ট ধর্ষণের অভিযোগ এনে ছাত্রীর লিখিত অভিযোগ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনের কাছে জমা দেন তার বাবা ও মা। একই অভিযোগ জাতীয় রবীন্দ্রসংগীত সম্মিলন পরিষদের কাছে জমা দেয়ায় গত ৩১ আগস্ট রবিনকে জাতীয় রবীন্দ্রসংগীত সম্মিলন পরিষদের সদস্য পদ থেকে সাময়িক অব্যাহতি দেয়া হয়।

মামলার বাদী ভুক্তভোগী ছাত্রীর বাবা জানান, ২০১০ সালে রকিবুল হাসান তার বাড়িতে এসে ১২ বছর বয়সী মেয়েকে গান শেখাতেন। এভাবে রকিবুল তাদের আস্থাভাজন ও বিশ্বস্ত হয়ে ওঠার সুযোগে তার মেয়েকে একাধিকবার ধর্ষণ করেছেন।

আইনি পদক্ষেপ দেরিতে নেয়ার কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন, সামাজিক সমর্থন না পাওয়ার আশঙ্কায় ঘটনাটি প্রকাশ করতে পারেননি। অন্য কেউ ওই সঙ্গীত পরিচালকের দ্বারা ক্ষতির শিকার না হন সেজন্য তারা বিষয়টি সামনে এনেছেন।

এদিকে রাকিবুল হাসানের বিরুদ্ধে অভিযোগ আমলে নিয়েছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

ভুক্তভোগীর দেওয়া অভিযোগের অগ্রগতি বিষয়ে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌন নির্যাতন প্রতিরোধ সেলের আহ্বায়ক প্রাণিবিদ্যা বিভাগের অধ্যাপক ড. রেজিনা লাজ বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য দফতর থেকে বিষয়টি সেলের কাছে পাঠানো হয়েছে। গত বুধবার আমরা প্রথম একটি সভা করেছি।

এর আগে দ্রুত অভিযোগ তদন্ত করে ওই কর্মকর্তার শাস্তির দাবিতে ক্যাম্পাসে মানববন্ধন করে রাবি শাখা ছাত্র ফেডারেশন।