ঢাবি ও কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় প্রীতি বিতর্কের পুরো ভিডিও


ঢাবি টাইমস
Published: 2018-02-22 21:35:10 BdST | Updated: 2018-06-21 16:05:31 BdST

২১ ফেব্রুয়ারি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসির পায়রা চত্বরে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় বনাম ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বিতার্কিকদের মধ্যে জমজমাট প্রীতি বিতর্ক অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এ বিতর্ক প্রায় ২ হাজার দর্শক উপভোগ করেন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে বিতর্ক করেন জিহাদ আল মেহেদী, শেখ মাহবুবে সোবহানী সৌরভ এবং আফরিদা জিননুরাইন ঊর্বি। আর কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে বিতর্ক করেন, প্রান্তিক চক্রবর্তী, দীপ পোদ্দার এবং গৌরব দত্ত।

বিতর্কের বিষয় ছিল 'কাঁটাতার উত্তর নয়, এক দীর্ঘ প্রশ্ন' ।

ভিডিও দেখতে এখানে ক্লিক করুন 

কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিতার্কিকরা পশ্চিমবঙ্গের আবুল কালাম আজাদ কলেজে বঙ্গবন্ধু চেয়ার প্রতিষ্ঠার জন্য ঢাবি ভিসিকে উদ্যোগ নেয়ার আহবান জানান। তখন ভিসি বলেন, আবুল কালাম আজাদ কলেজ কর্তৃপক্ষ যদি উদ্যোগ নেয় আমরা সকল ধরণের সহায়তা করব।

বিতার্কিকরা বাংলাদেশের আতিথেয়তার ভূয়সী প্রশংসা করেন। বলেন, আবার আসব এই বাংলায়, বারবার আসব, দাওয়াত না দিলেও আসব। এ তো আত্মার টান।

ভিডিও দেখতে এখানে ক্লিক করুন 

ভাষাশহীদদের স্মরণে ও বাংলা ভাষার মাধ্যমে বাঙালি সংস্কৃতির সমৃদ্ধি উদযাপনের লক্ষ্যে বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ বিতর্ক সংগঠন ঢাকা ইউনিভার্সিটি ডিবেটিং সোসাইটি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে এই বিশেষ প্রীতি বিতর্কটির আয়োজন করে।

ঢাবি ডিবেটিং সোসাইটির সভাপতি প্রিন্স ক্যাম্পাসটাইমসকে বলেন, ভাষার মাধ্যমে খণ্ডিত বাংলার মানুষের মাঝে আরো একবার বৃহত্তর জাতিয়তাবোধের চেতনা ফিরিয়ে আনা এবং নিজস্ব কৃষ্টি ও পরিচয় সম্পর্কে সচেতনতা সৃষ্টির অনুঘটক হিসেবে এই প্রীতি বিতর্কের প্রয়াস অনন্য।

এতে প্রধান অতিথী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাবির উপাচার্য অধ্যাপক ড. আখতারুজ্জামান। বিতর্কটি মডারেট করেন- অধ্যাপক ড. মাহবুবা নাসরিন, মডারেটর ঢাকা ইউনিভার্সিটি ডিবেটিং সোসাইটি। বিতর্ক নিয়ে পর্যবেক্ষণ প্রদান করেন ড. সৌমিত্র শেখর, অধ্যাপক, বাংলা বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।

বিডিবিএস 

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।