রাবিতে যৌন হয়রানির ঘটনায় প্রাধ্যক্ষকে অব্যাহতির ঘোষণা


মারুফ হাসান
Published: 2019-09-27 18:40:20 BdST | Updated: 2019-12-14 21:25:08 BdST

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) এক শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানির ঘটনায় বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা হলের প্রাধ্যক্ষকে অব্যাহতি দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বৃহস্পতিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকে প্রশাসন ভবন ঘেরাও করে শিক্ষার্থীরা আন্দোলন করলে দুপুরে উপাচার্য ড. এম আব্দুস সোবহান এ ঘোষণা দেন।

এর আগে, শিক্ষার্থীরা বেলা ১১টা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে থেকে পদত্যাগের দাবি নিয়ে বঙ্গমাতা হলের সামনে এসে অবস্থান নেয়। এরপর সৈয়দ নজরুল ইসলাম প্রশাসন ভবনের সামনে অবস্থান করে স্লোগান দিতে থাকে। পরে বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য এম আব্দুস সোবহান শিক্ষার্থীদের সাথে কথা বলে তাদের দাবি মেনে নেয়ার ঘোষণা দেন।

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে উপাচার্য বলেন, ‘তোমাদের দাবি যৌক্তিক। আমরা তা শুনেছি। আগামী দুয়েকদিনের মধ্যে ওই প্রাধ্যক্ষকে আনুষ্ঠানিকভাবে অব্যাহতি দেয়া হবে।’

এর আগে, ঘটনার সুষ্ঠু বিচারের দাবি জানিয়ে শিক্ষার্থীরা প্রশাসন বরাবর কয়েকটি দাবি উত্থাপন করেন।

দাবিগুলো হলো অপরাধীর শাস্তি নিশ্চিত করা, বিথিকা বনিকাকে প্রাথমিক স্টেটমেন্ট দেয়া, মেয়েটির পরিবারের কোন প্রকার চাপ না দেয়া, নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ হওয়ায় তার পদত্যাগ করা, কুরুচিপুর্ণ কথা বলেছে তার ক্ষমা চাওয়া, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন থেকে পদক্ষেপ নেওয়া প্রতিটি হল, ডিপার্টমেন্ট সেল গঠন করা এবং ক্যাম্পাসে নিরাপত্তা নিশ্চিত করা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র উপদেষ্টা লায়লা আরজুমান বানু বলেন, এ ঘটনার জন্য অভিযুক্তকে অবশ্যই শাস্তি পেতে হবে। এসময় তিনি শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক আন্দোলনের সাথে একাত্ত্বতা ঘোষণা করেন।

উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার রাতে বিথিকা বণিকের বাসায় টিউশনি করাতে যান ইংরেজি বিভাগের এক শিক্ষার্থী। বৃষ্টি হওয়ায় রাতে ওই বাসাতেই অবস্থানকালে যৌন হয়রানির শিকার হন তিনি। এরপর ঘটনার কথা পুলিশকে জানালে অভিযোগের প্রেক্ষিতে বুধবার অভিযুক্ত শ্যামল বণিককে আটক করে মতিহার থানার পুলিশ।