ছাত্রীদের উত্ত্যক্ত : রাবি শিক্ষার্থীকে স্থায়ী বহিষ্কার


টাইমস প্রতিবেদক
Published: 2018-05-31 18:31:21 BdST | Updated: 2018-06-20 11:58:42 BdST

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) সহপাঠীদের হয়ারানির অভিযোগে আইন বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী এ কে এম নাজমুল হাসান চৌধুরী ওরফে শিশিরকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক এম আব্দুস সোবহানের সভাপতিত্বে ৪৮০তম সিন্ডিকেট সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয় বলে নিশ্চিত করেন বিশ্ববিদ্যালয় পরিষদ শাখার সহকারী রেজিস্ট্রার মামুন অর রশীদ। তবে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানাতে তিনি অপারগতা প্রকাশ করেন।

এর আগে গত ২৫ মার্চ সহপাঠী, বিভাগের সিনিয়রসহ প্রায় ১৫ জন ছাত্রীকে উত্ত্যক্তের অভিযোগ ওঠে শিশিরের বিরুদ্ধে। প্রমাণসহ স্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিংয়ের সহযোগিতায় তাকে হাতেনাতে আটক করা হয়। এরপর তার বিরুদ্ধে উপযুক্ত ব্যবস্থা নিতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে দাবি জানান শিক্ষার্থীরা। ওই দিন শিশিরের বিরুদ্ধে উত্ত্যক্তের অভিযোগ এনে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য, উপ-উপাচার্য, ছাত্র উপদেষ্টা, ডিন ও বিভাগীয় সভাপতি বরাবর লিখিত অভিযোগ দেন শিক্ষার্থীরা।

অভিযোগপত্রে উল্লেখ্য করা হয়- ‘মৃন্ময় আয়ান’ নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে ছাত্রীদেরকে খারাপ মেসেজ, ভিডিও ও লেখা পাঠানো হত। অসামাজিক কাজের আহ্বান জানানোও হত কয়েকদিন ধরে।

ঘটনাটি যখন উল্লেখ্যযোগ্য সংখ্যক শিক্ষার্থীর মধ্যে ছড়িয়ে পড়ে তখন বিভাগের শিক্ষার্থীরা লিখিত অভিযোগ দেন। এর প্রায় দুই মাস পর তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিল বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

তবে ছাত্রত্ব বাতিলের বিষয়ে জানতে চাইলে বিভাগ সভাপতি অধ্যাপক ড. আব্দুল হান্নান বলেন, সিন্ডিকেটের বিষয় এটি। রেজুলেশন না আসা পর্যন্ত কিছু বলতে পারব না।

এসএম/ ৩১ মে ২০১৮

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।