শুরু হলো পবিত্র রমজান মাস


টাইমস প্রতিবেদক
Published: 2018-05-18 14:33:25 BdST | Updated: 2018-10-21 15:24:20 BdST

রহমত, বরকত আর নাজাতের বারতা নিয়ে দীর্ঘ ১১ মাস পর ঘরে ঘরে আবার এসেছে পবিত্র মাহে রমজান। সিয়াম সাধনার মাস। বৃহস্পতিবার দিবাগত শেষ রাতে সেহরি খাওয়ার মধ্য দিয়ে শুরু হয় আরবি ১৪৩৯ হিজরির রমজানের পবিত্রতা। দিনব্যাপী পানাহার বন্ধের মধ্য দিয়ে সংযম আর আত্মশুদ্ধির এই চর্চা চলবে মাসব্যাপী।

গত বুধবার রমজানের চাঁদ দেখা না যাওয়ায় শুক্রবার থেকে রমজান শুরুর সিদ্ধান্ত জানায় ইসলামিক ফাউন্ডেশন। সে অনুযায়ী বৃহস্পতিবার রাতেই রোজা পালনের জন্য এশার নামাজের পাশাপাশি তারাবির নামাজেও শরিক হন মুসল্লিরা। ভোররাতে সেহরি খেয়ে আজ শুক্রবার থেকে রোজা করছেন তারা। সূর্যাস্ত পর্যন্ত কোন ধরনের খাদ্য-পানীয় গ্রহণ থেকে বিরত থেকে মহান আল্লাহর প্রতি আনুগত্য প্রকাশ করছেন। মসজিদে মসজিদে তারাবি জামায়াতের মধ্য দিয়ে শুরু হয় রমজানের আনুষ্ঠানিকতা। শেষ রাতে সেহরি খাওয়ার মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে আজকের দিনের উপবাস। জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমসহ দেশের সব মসজিদে প্রতিবারের মতো এবারও পড়া হবে তারাবি নামাজ। এ ক্ষেত্রে দেশের সব মসজিদে বায়তুল মোকাররমের পদ্ধতি অনুসরণের আহ্বান জানিয়েছে ইসলামি ফাউন্ডেশন।

এই মাসের নাম এসেছে আরবি ‘রামাদ’ শব্দ থেকে। এর অর্থ ‘তপ্ত’ বা ‘শুষ্কতা’। প্রথম রমজান মাস পালিত হয়েছিল গ্রীষ্মে, সে জন্যই এমন নামকরণ করা হয়েছে। নামকরণের আরেকটি প্রতীকী কারণ হচ্ছে, গ্রীষ্মের সূর্য যেমন পৃথিবীকে দগ্ধ করে, তেমনি এই মাস সব পাপকে পুড়িয়ে ছাই করে দেয়।

রমজান মাস দোয়া কবুলের মাস। রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেন:‘রমজান মাসে প্রত্যেক মুসলিমের দোয়া কবুল করা হয়।’ (মুসনাদ আহমদ)। অন্য হাদিসে রয়েছে, ‘ আল্লাহ রাব্বুল আলামিন রমজানের প্রতি রাতে ও দিনে বহু মানুষকে মুক্তি দিয়ে থাকেন এবং প্রতি রাত ও দিবসে মুসলিমের দোয়া-প্রার্থনা কবুল করা হয়।’ (সহি আত-তারগিব ওয়াত-তারহিব)।

পুরো রমজান মাস জুড়েই বিশ্ব মুসলিম উম্মাহর মধ্যে এক অন্যরকম ধর্মীয় অনূভূতি বিরাজ করে। সাহরি, ইফতার, তারাবিসহ এ মাসে বেশি বেশি ইবাদতের উপর গুরুত্বারোপ করা হয়েছে। হাদিসে আছে, রমজান মাসের যে কোন ইবাদতে অন্যান্য সময়ের চেয়ে ৭০ গুণ বেশি সওয়াব পাওয়া যায়।

এ মাসেই রয়েছে হাজার রাত্রির চেয়ে মর্যাদা সম্পন্ন শবে কদরের রাত। রমজানের শেষ দশদিনের যে কোন বিজোড় রাতে এই রাত্রি অনুসন্ধান করতে বলা হয়েছে।

রমজান মাস শেষেই আসে মুসলিম উম্মাহর সবচেয়ে বড় উৎসব ঈদ-উল ফিতর। এদিকে, সৌদি আরবসহ মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোয় বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হয়েছে পবিত্র রমজান মাস।

এসএম/ ১৮ মে ২০১৮

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।