নাঙ্গলকোটে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের ফুটবল প্রতিযোগিতা


ডেস্ক রিপোর্ট
Published: 2019-08-16 18:39:02 BdST | Updated: 2019-09-15 23:19:34 BdST

কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার দেশের বিভিন্ন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া শিক্ষার্থীদের সংগঠন পাবলিক ইউনিভার্সিটি স্টুডেন্টস্ ইউনিয়ন অব নাঙ্গলকোট (পিউসান) কর্তৃক তিনশ'র বেবেশি শিক্ষার্থীর অংশগ্রহণে আয়োজিত হয়েছে ইদ পুনর্মিলনী ও ফুটবল প্রতিযোগিতা ম্যাচ।

বুধবার (১৪ আগস্ট) নাঙ্গলকোট উপজেলার নাঙ্গলকোট এ আর হাই স্কুল মাঠে ৬ টি টিমের অংশগ্রহণে সকাল ৯ টা থেকে সন্ধ্যা ৭ টা পর্যন্ত বৈরী আবহাওয়ার মধ্যেও চলে এই ফুটবল ম্যাচ ও ইদ পুনর্মিলনী প্রোগ্রাম।

ফুটবল প্রতিযোগিতায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিম 'অপরাজেয় ডিউসান', চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের টিম 'শাটল ওয়ারিয়র্স ', কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিম 'কুসান ইউনাইটেড ', জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের টিম 'ভিক্টোরিয়ান জউসান', নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের টিম 'স্লেয়ার্স অব নোবিপ্রবি' এবং বাকি সব বিশ্ববিদ্যালয় মিলে আরেকটি টিম ' স্টারস্ অব পিউসান ' দুটি গ্রুপে বিভক্ত হয়ে উক্ত খেলায় অংশগ্রহণ করে।

গ্রুপ পর্বে চ্যাম্পিয়ন হয়ে অপরাজেয় ডিউসান ও শাটল ওয়ারিয়র্স ফাইনাল খেলায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে শাটল ওয়ারিয়র্স ২-০ গোলে অপরাজেয় ডিউসানকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয়।

ফাইনাল খেলায় উপস্থিত ছিলেন অর্থমন্ত্রীর একান্ত সহকারী সচিব বাবু কে এম সিংহ রতন, নাঙ্গলকোট পৌরসভার মেয়র আব্দুল মালেক, নাঙ্গলকোট উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আবু ইউসুফ ভূঁইয়া, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের পাঠাগার সম্পাদক জাবেদ হোসেন, নাঙ্গলকোট উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুর রাজ্জাক সুমন, সাধারণ সম্পাদক ওমর ফারুক মামুনসহ পিউসান সিনিয়র নেতৃবৃন্দ।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও এই আয়োজনের অন্যতম উদ্যোক্তা জহিরুল ইসলাম বলেন, এই খেলার মাধ্যমে আমরা চেয়েছি নাঙ্গলকোটের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা একই প্লাটফর্মে মিলিত হোক। ভবিষ্যতে আমরা সবাই একই প্লাটফর্মে থেকে নাঙ্গলকোটের শিক্ষার উন্নয়নের জন্য কাজ করে যেতে চাই। 'যে জাতি যত বেশি শিক্ষিত সে জাতি তত উন্নত '- তাই আমরা নাঙ্গলকোটের শিক্ষার জন্য কাজ করে নাঙ্গলকোটকে একটি উন্নত ও সমৃদ্ধসম্পন্ন মডেল উপজেলা হিসেবে গড়ে তুলতে চাই।

আয়োজনের আরেকজন উদ্যোক্তা চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী সাইফুল ইসলাম বলেন, দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে নাঙ্গলকোটের অনেক স্টুডেন্ট রয়েছে।  তাই সবাইকে নিয়ে আমরা এই মিলনমেলার আয়োজন করে আমাদের সম্পর্কটা বাড়াতে চেয়েছি। পাশাপাশি নাঙ্গলকোট উপজেলাকে আধুনিক নাঙ্গলকোট হিসেবে বিনির্মানের লক্ষ্যে কাজ করব।

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও আরেক আয়োজক কবির আহমেদ বলেন, এই সংগঠনের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি-ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের সচেতনতামুলক প্রোগ্রাম ও তাদের সহায়তা করে যেতে চাই।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।