মেয়েরা হেডফোন ব্যবহার বেশি করে


ঢাকা
Published: 2019-04-29 13:04:00 BdST | Updated: 2019-12-14 10:38:42 BdST

তথ্যপ্রযুক্তির উৎকর্ষতার ফলে আমাদের জীবনাচারে অনেক পরিবর্তন এসেছে। চিঠির পরিবর্তে এসেছে মুঠোফোন। একা একা গান শোনা, কথা বলা এবং ভিডিও দেখার জন্য এসেছে হেড ফোন বা ইয়ার ফোন। তবে প্রতিটি আবিষ্কারের যেমন ইতিবাচক দিক আছে, ঠিক তেমনি নেতিবাচক দিকও রয়েছে। আবার কোন কোন আবিষ্কারে ছেলেদের চেয়ে মেয়েদের আগ্রহ বেশি। এই হেড ফোন বা ইয়ার ফোন তেমন একটি আবিষ্কার।

আমাদের দেশে বা বিদেশে রাস্তা-ঘাটে, বাসা-বাড়িতে, অফিস-ক্যাম্পাসে সবাইকে কমবেশি হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করতে দেখা যায়। এ ব্যবহারের দিক থেকে মেয়েরাই বেশি এগিয়ে বলে অনেকেই একমত। তাদের দাবি, ছেলেদের তুলনায় মেয়েরা বেশি হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করে থাকে। এমনকী শুধু গোসলের সময় বাদে প্রায় সারাক্ষণই তাদের কানে হেড ফোন বা ইয়ার ফোন দেখা যায়।

এছাড়া চলতি পথে বা গাড়িতে বেশিরভাগ সময়ই দেখা যায়, মেয়েদের কানে হেড ফোন বা ইয়ার ফোন গোজা রয়েছে। হয়তো তারা নিঃসঙ্গতা কাটাতে, অতিরিক্ত কথাবার্তা এড়াতে বা চলতি পথে অন্য কোথাও মনোযোগ না দিতেই হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করছেন। এছাড়াও মোবাইল থেকে গান শোনা, এফএম রেডিওর অনুষ্ঠান শোনার জন্যও হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করে থাকেন।

একই অবস্থা বাসা-বাড়িতেও। মেয়েটি তার কক্ষে একা থাকলেও হেড ফোন বা ইয়ার ফোন কানে গোজা রয়েছে। গান, এফএম ছাড়ও প্রেমঘটিত ব্যাপারেও তারা হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করতে পারেন। এছাড়া ইউটিউবে নাটক, সিনেমা দেখার জন্যও মেয়েরা হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করে থাকেন।

কখনো কখনো অফিসেও কাজের ফাঁকে ফাঁকে হেড ফোন বা ইয়ার ফোনে গান শোনার অভ্যাস রয়েছে অনেক মেয়ের। কখনো কখনো হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করাও তাদের নিয়মিত অভ্যাসে পরিণত হয়ে যায়। ফলে ফোনে কথা বলার ক্ষেত্রেও তারা হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করে থাকে।

বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, নিঃসঙ্গতা দূর করতে, কোন কিছু লুকাতে, ভ্রমণকালীন এবং ফ্যাশন দেখাতে হেড ফোন বা ইয়ার ফোনের ব্যবহার বাড়ছে। আমাদের দেখা মতে, মেয়েরা হেড ফোন বা ইয়ার ফোন বেশি ব্যবহার করলেও ছেলেরা খুব বেশি পিছিয়ে নেই। তবে এটি ব্যবহারের ক্ষেত্রে সবাইকে সচেতন হওয়া উচিত।

সচেতনতামূলক স্থিরচিত্রের মডেল সাঈদ রিমন বলেন, ‘হেড ফোন বা ইয়ার ফোন কানে দেওয়ার সুযোগে অনেক দুর্ঘটনা ঘটতে পারে। কারণ এসময় ছিনতাইকারীরা তাদের ব্যাগ টান দেয়। কানের বা গলার অলঙ্কার টেনে নিয়ে যায়। অনেক সময় সড়ক দুর্ঘটনাও ঘটে। তাই ছেলে হোক বা মেয়ে হোক, হেড ফোন ব্যবহারে সতর্ক হওয়া উচিত।’

আসলে যারাই বেশি ব্যবহার করুক, কথা হচ্ছে- এ ইয়ার ফোন বা হেড ফোনের কারণে শ্রবণশক্তি ধীরে ধীরে নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। তাহলে কি আমরা হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করবো না? অবশ্যই করবো। তবে প্রত্যেকটি জিনিস ব্যবহারের নিয়ম আছে। তেমনি হেড ফোন বা ইয়ার ফোন ব্যবহারের নিয়ম আমাদের মেনে চলতে হবে।