নতুন বছরে ক্রিকেটারদের নতুন স্বপ্ন


টাইমস ডেস্ক
Published: 2017-12-31 18:40:41 BdST | Updated: 2018-09-24 10:40:32 BdST

২০১৭ কে বিদায় জানিয়ে শুরু হলো ২০১৮। পুরানো সব কিছু ভুলে ভালো কিছুর প্রত্যাশায় নতুন বছরকে স্বাগত জানালো প্রত্যেকে। পিছিয়ে নেই ক্রিকেটাররাও। প্রত্যেক ক্রিকেটারই ২০১৭ সালটা যেভাবে কাটিয়েছেন, তার চেয়ে আরও ভালোভাবে কাটানোর অপেক্ষায় আছেন। নতুন বছরে ক্রিকেট মাঠে তারা প্রত্যেকেই ভয়-ডরহীন ক্রিকেট খেলতে বদ্ধপরিকর। ২০১৮ সাল নিয়ে নিজেদের ভাবনা জানালেন তামিম-মোস্তাফিজরা:

তামিম ইকবাল: বিদায়ী বছরটা আমাদের জন্য দারুণ ছিল, বিশেষ করে ওয়ানডে ক্রিকেটে। অবশ্য ছোট ছোট কিছু ভুল থাকলেও ভালো ফলাফল ছিল। নতুন বছরে গত বছরের চেয়ে ভালো ক্রিকেট খেলার আশা ও প্রত্যাশা থাকবে। ব্যক্তিগতভাবে বললে গত বছর আমার পারফরম্যান্স ভালো ছিল। তবে আরও ভালো করতে পারতাম। ভক্তদের উদ্দেশ্যে বলব, আমার জন্য সবাই দোয়া করবেন। যেন আমি নতুন বছরে আরও সফল হয়ে বাংলাদেশকে আরও বেশি ম্যাচ জেতাতে পারি।

মাহমুদউল্লাহ: শেষ ৩ বছর আমাদের ক্রিকেটের সময়টা খুব ভালো গেছে। ২০১৮ সালে আমাদের সামনে অনেক খেলা। ভালো বিষয়গুলো আমরা যেন নতুন বছরে নিয়ে যেতে পারি, সেখানেই আমাদের নজর রাখতে হবে। নতুন বছরের শুরুটা হতে যাচ্ছে ঘরের মাঠে। আশা করি এখানে শুরুটা জয় দিয়েই করতে পারব। আমি ব্যক্তিগতভাবে সব সময়ই চেষ্টা করি জাতীয় দলের জার্সিতে নিজেকে উজাড় করে দিয়ে খেলতে। আগামীতেও সেই চেষ্টা অব্যাহত থাকবে।

মোস্তাফিজুর রহমান: ২০১৬ সালের মতো সময়টা হয়তো আমার ২০১৭ সালে যায়নি। ইনজুরিসহ নানা কারণেই সমস্যা হয়েছে। নতুন বছরে আশা করি নতুন রূপে ফিরতে পারব। সব সময়ই চাই দল ও দেশের জন্য কিছু করতে। ভক্তদেরকে বলব, ভালো ও খারাপ সময়েও আমাদের পাশে থাকুন। সবাইকে হ্যাপি নিউ ইয়ার।

মুমিনুল হক: জীবনে যা অর্জন করিনি, সেটা ২০১৮ সালে অর্জন করতে চাই। অনেক ভালো খেলতে চাই। আশা করি আমার ক্যারিয়ারের টার্নিং পয়েন্ট হবে ২০১৮ সাল। এ বছর আমাদের অনেক খেলা আছে। আশা করি এখানে আমি দলের জন্য ভালো কিছু পারফরম্যান্স উপহার দিতে পারব। সবসময়ই চাই, তিন সংস্করণেই ক্রিকেট খেলতে। সেই চাওয়াটা ২০১৮ সালেই পূরণ করার চেষ্টা করব।

শফিউল ইসলাম: নতুন বছরে প্রত্যাশা একটাই, দলে নিয়মিত হতে চাই। আসা যাওয়ার মধ্যে থাকতে চাই না। দলে অনেক প্রতিযোগিতা, সেটা থাকবেই। সেগুলো নিয়ে ভাবি না। আমি আমার কাজগুলো করেই নিয়মিত হতে চাই।

কামরুল ইসলাম: নতুন বছরে যখনই সুযোগ আসবে, সেগুলো কাজে লাগাতে চাই। তবে সুযোগগুলো হুটহাট আসছে বলেই থিতু হতে পারছি না। যদিও নিজের সামর্থ্যের সবটুকু দিয়ে চেষ্টা করছি। নতুন বছরে আরও বেশি পরিশ্রম করব। যাতে জাতীয় দলে থিতু হতে পারি।

এনামুল হক: বিগত বছরগুলোতে যে ভুলগুলো হয়েছে, সেগুলো না করা। ভুলগুলো থেকে শিক্ষা নিয়ে সেগুলো সুন্দরভাবে বাস্তবায়ন করতে চাই নতুন বছরে। ২০১৫ সালে বাদ পড়ার পর থেকেই জাতীয় দলে ফেরার স্বপ্ন দেখছি। নতুন বছরে সুযোগ পেলে, নিজের জায়গাটা দখল রাখতে চাই।

নাসির হোসেন: বিশেষ কোনও লক্ষ্য সেভাবে নেই! চেষ্টা করব জাতীয় দলে নিজের জায়গাটা পুনরুদ্ধার করতে। ঘরোয়া ক্রিকেটের পারফরম্যান্স ভালো হচ্ছে, জাতীয় দলেও যেন এটা ধরে রাখতে পারি। সবার জীবনেই কিছু টার্নিং পয়েন্ট থাকে। আমি ২০১৮ সালটাকে আমার ক্যারিয়ারের টার্নিং পয়েন্ট বানাতে চাই।

সৌম্য সরকার: চাইবো যেন বারবার আপনাদের সামনে আসতে পারি। কখন আপনাদের সামনে আসি? যখন ভালো খেলি। আমি ২০১৮ সালে ভালো খেলতে চাই এবং আপনাদের সামনে বারবার আসতে চাই। ভক্তরা যারা আমার পাশে ছিলেন, তাদেরকে নতুন বছরও আমার পাশে চাই।

তাসকিন আহমেদ: নতুন বছরে নতুন করে শুরু করতে চাই। ২০১৮ সালে আমি আমার ক্যারিয়ারকে ভিন্ন পর্যায়ে নিয়ে যেতে চাই। নিজের সেরাটা খেলতে চাই।

মেহেদী হাসান মিরাজ: খুব বেশি পরিবর্তনের কিছু নেই। যা করছি, সেটা আরও ভালোভাবে করতে চাই। ২০১৮ সালে আগের মতোই পরিশ্রম করব, পারফর্ম করার দিকে মনোযোগী হব।

মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন: ভালো খেলতে চাই। নতুন বছরে জাতীয় দলে নিয়মিত হতে চাইব। ওয়ানডে দলে সুযোগ পেলে টিকে থাকতে চেষ্টা করব। আপতত টেস্ট নিয়ে পরিকল্পনা নেই। সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন।

আরএম/ ০১ জানুয়ারি ২০১৮

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।