২৪ ঘণ্টার মধ্যে বর্জ্য অপসারণের ঘোষণা মেয়র তাপসের


টাইমস প্রতিবেদক | Published: 2021-07-21 12:42:53 BdST | Updated: 2021-07-24 04:03:06 BdST

কোরবানির পশুর বর্জ্য ২৪ ঘণ্টার মধ্যে অপসারণ করার ঘোষণা দিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস।

বুধবার (২১ জুলাই) জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে ঈদের নামাজ আদায় শেষে তিনি এ ঘোষণা দেন। মেয়র তাপস বায়তুল মোকাররমে ঈদুল আজহার প্রধান ও প্রথম জামাতে অংশ নেন।

ঈদের নামাজ আদায় শেষে তিনি সাংবাদিকদের ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়ে বলেন, আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ঢাকা শহর থেকে সব বর্জ্য অপসারণ অপসারণ করা হবে।

তিনি বলেন, আজ থেকেই আমাদের পরিচ্ছন্নকর্মীরা বর্জ্য অপসারণের কাজ করবেন। আমাদের কর্মীরা বর্জ্য সংগ্রহে মাঠে থাকবেন। আপনারা কোরবানির বর্জ্য তাদের হাতে দেবেন। যাতে একটি পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন নগরী আমরা ঢাকাবাসীকে উপহার দিতে পারি।

জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে ঈদুল আজহার প্রধান ও প্রথম জামাত অনুষ্ঠিত হয় সকাল ৭টায়। এই জামাতে ইমাম ছিলেন বায়তুল মুকাররম জাতীয় মসজিদের সিনিয়র পেশ ইমাম হাফেজ মুফতি মাওলানা মো. মিজানুর রহমান। মুকাব্বির ছিলেন বায়তুল মুকাররমের মুয়াজ্জিন মো. আতাউর রহমান।

ঈদুল আজহার দুই রাকাত নামাজ শেষে হাজারো মুসল্লির অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত মোনাজাতে করোনাভাইরাস থেকে মুক্তির জন্য দোয়া করা হয়। বায়তুল মোকাররমে এবার ঈদুল আজহার মোট পাঁচটি জামাত অনুষ্ঠিত হবে।


দ্বিতীয় জামাত সকাল ৮টায়, তৃতীয় জামাত সকাল ৯টায় এবং চতুর্থ জামাত সকাল ১০টায় অনুষ্ঠিত হয়। আর পঞ্চম ও শেষ জামাত হবে সকাল ১০টা ৪৫ মিনিটে।

এর আগে গতকাল মঙ্গলবার ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই কোরবানির পশুর বর্জ্য অপসারণ করা হবে বলে আশা করেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম।

আতিক বলেন, আসন্ন ঈদুল আজহায় স্থানীয় কাউন্সিলরসহ সকলের আন্তরিক সহযোগিতায় ২৪ ঘণ্টার মধ্যে কোরবানির পশুর বর্জ্য অপসারণ করা হবে। বিশেষ পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রমের আওতায় আসন্ন ঈদুল আজহায় ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে সর্বমোট ১১ হাজার ৫০৮ জন কর্মী কোরবানির বর্জ্য অপসারণ কাজে নিয়োজিত থাকবে।

তিনি বলেন, কোরবানি পশুর বর্জ্য অপসারণে গুলশানের নগর ভবনে কন্ট্রোল রুম স্থাপন করা হয়েছে। কন্ট্রোল রুমের নম্বরগুলো হলো- ০২৫৮৮১৪২২০, ০৯৬০২২২২৩৩৩ এবং ০৯৬০২২২২৩৩৪।

তিনি আরও বলেন, কোরবানির পশুর বর্জ্য দ্বারা যাতে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশের সৃষ্টি না হয়, সে জন্য ওয়ার্ড কাউন্সিলরদের মাধ্যমে নগরবাসীর মাঝে ইতোমধ্যে ছয় লাখ ৫০ হাজার বর্জ্য ব্যাগ, ৫০ মেট্রিক টন ব্লিচিং পাউডার এবং ৫ লিটার আয়তনের ১০০৫ ক্যান স্যাভলন বিতরণ করা হয়েছ।