রামপুরায় বাস চাপায় এসএসসি পরীক্ষার্থী নিহত, ৮ বাসে আগুন


ঢাকা | Published: 2021-11-30 00:12:53 BdST | Updated: 2022-01-18 18:55:02 BdST

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মধ্যে ঢাকার রামপুরায় এক সড়ক দুর্ঘটনায় এক শিক্ষার্থী নিহত হওয়ার পর ৮টি বাস পুড়িয়েছে বিক্ষুব্ধ জনতা, ভাংচুরও করেছে আরও কয়েকটি বাস।

সোমবার রাত ১০টার দিকে গ্রিন অনাবিল পরিবহনের একটি বাসের চাপায় ওই শিক্ষার্থী মারা যান। এর পরপরই জনতা বাস আটকে ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগ শুরু করে।

স্থানীয়রা জানিয়েছে, নিহত তরুণের নাম মাঈনুদ্দীন। তিনি স্থানীয় একরামুন্নেসা স্কুল থেকে এসএসসি পরীক্ষা দিচ্ছিলেন।

মালিবাগের পাবনা কলোনির বাসিন্দা জীবন চৌধুরী ঘটনাস্থল থেকে বলেন, বাসের চাপায় ওই শিক্ষার্থীর দেহ একেবারে পিষে যায়। পরে উত্তেজিত জনতা গ্রিন অনাবিলের বাসটিসহ কয়েকটি বাসে আগুন ধরিয়ে দিতে শুরু করে।

রামপুরা থানার এসআই তাপস কুমার জানান, রাত ১০টার দিকে সড়কে বাসের চাপায় এক তরুণের নিহত হওয়ার খবর পেয়ে থানার কর্মকর্তারা সেখানে গেছেন।

ফায়ার সার্ভিসের নিয়ন্ত্রণ কক্ষে যোগাযোগ করা হলে ডিউটি অফিসার এরশাদ আলী বলেন, রামপুরা সড়কে নয়টি বাসে আগুনের খবর পেয়ে তাদের বাহিনীর কয়েকটি ইউনিট আগুন নেভাতে গেছে।

সোমবার দুপুরেও রামপুরায় রাইদা পরিবহনের ৪০টি বাস আটক করেছিল ইম্পিরিয়াল কলেজের শিক্ষার্থীরা। এক সহপাঠীকে ধাক্কা দিয়ে নামিয়ে দেওয়ার প্রতিবাদে ওই বাসগুলো আটকেছিল তারা।

পরে পুলিশের উপস্থিতিতে বাস মালিকদের সঙ্গে সমঝোতায় বিকালে বাসগুলো ছেড়ে দেওয়া হয়।