আমার ছেলের অপরাধ সে ছাত্রলীগ করতো: অমিত সাহার মা


Desk report | Published: 2021-12-09 00:49:59 BdST | Updated: 2022-05-25 16:04:32 BdST

‘আমার ছেলে ঘটনার সময় ছিল না। সে নেত্রকোনার বাড়িতে যায়। তার অপরাধ সে ছাত্রলীগ করতো।’

মঙ্গলবার (৮ ডিসেম্বর) দুপুরে ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল ১-এর বিচারক আবু জাফর মোহাম্মদ কামরুজ্জামানের আদালত বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যা মামলার রায়ের পর যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি অমিত সাহার মা দেবী রানী সাহা অসন্তোষ প্রকাশ করে বলেন এসব কথা।

দেবী রানী আরও বলেন, ‘গণমাধ্যমের চাপে আমার ছেলেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাকে জড়ানো হয়েছে। সে নাকি শুধু মেসেঞ্জারে কথা বলেছে, এজন্য যাবজ্জীবন! আশা করেছিলাম অমিত খালাস পাবে।’

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত অপর আসামি মুয়াজ আবু হুরায়রাও রায় নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। তার বাড়ি কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচরে। রায় শুনতে তার মা আদালতেই ছিলেন। মুয়াজ বুয়েটের ই-ই-ই বিভাগের ১৭তম ব্যাচের ছাত্র।

তার মা বলেন, ‘মুয়াজ আবরারকে বাঁচানোর চেষ্টা করেছে। টাকা খরচ করে ওষুধ, স্যালাইন কিনেছে। তাকেই যাবজ্জীবন সাজা দেওয়া হলো।’