উত্তরা ইউনিভার্সিটির ১৫ দিনব্যাপী ভর্তি মেলা, ৩০ থেকে ১০০ শতাংশ শিক্ষাবৃত্তি


Desk report | Published: 2023-05-12 01:00:57 BdST | Updated: 2024-02-22 04:46:06 BdST

দেশের অন্যতম বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় উত্তরা ইউনিভার্সিটির ক্যাম্পাসে ১৫ দিনব্যাপী ভর্তি মেলার উদ্বোধন করা হয়েছে। এ মেলা চলবে আগামী ২৬ মে পর্যন্ত।

প্রতিদিন সকাল ১০টায় শুরু হয়ে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত এ মেলা চালু থাকবে। পাশাপাশি উত্তরা ইউনিভার্সিটি আশুলিয়া নিজস্ব ক্যাম্পাসে স্থানান্তর উপলক্ষে ২০২৩ সেশনের ভর্তিচ্ছুক শিক্ষার্থীদের জন্য ৩০ থেকে ১০০ শতাংশ পর্যন্ত শিক্ষাবৃত্তির ব্যবস্থা করেছে।

বৃহস্পতিবার (১১ মে) সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের উত্তরা ৬ নম্বর সেক্টরের ক্যাম্পাসে ১৫ দিনব্যাপী মেলার উদ্বোধন করেন ইউনিভার্সিটির ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. ইয়াসমীন আরা লেখা।

তিনি বলেন, আমাদের মোটো হচ্ছে ‘কোয়ালিটি এডুকেশন এট এফোর্টেবল টিউশন’।

আমরা চলমান ভর্তি মেলা ২০২৩ এবং স্থায়ী ক্যাম্পাসে স্থানান্তর উপলক্ষে ভর্তি ফিতে ৩০ থেকে ১০০ শতাংশ পর্যন্ত ছাড় দিচ্ছি। চার বছরের প্রোগ্রামগুলোর মধ্যে আইন বিভাগ ব্যতীত এসএসসি ও এইচএসসি’তে জিপিএ ৫ প্রাপ্তদের ফলাফলের ওপর ১০০ শতাংশ পর্যন্ত স্পেশাল স্কলারশিপ দিচ্ছি। আমাদের এখানে বিশ্বমানের শিক্ষকরা পড়ান। আমরা খুব যাচাই-বাছাই করে শিক্ষক নিয়োগ দিয়ে থাকি। আমাদের এখান থেকে শিক্ষার্থীরা পাস করে বের হওয়ার পর খুব দ্রুতই চাকরি পেয়ে যায়। মোট কথা কর্মসংস্থানের ব্যাপারে উত্তরা ইউনিভার্সিটি শিক্ষার্থীর অনেক এগিয়ে আছে।

এদিকে উদ্বোধনের পরই মেলায় ভর্তি সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য জানতে ভিড় করেন অভিভাবক ও শিক্ষার্থীরা। ইউনিভার্সিটির কর্মকর্তারা এ মেলায় ভর্তি সংক্রান্ত বিভিন্ন তথ্য জানাচ্ছেন। পাশাপাশি বর্তমান ও সাবেক শিক্ষার্থীরা এসেছেন ভর্তি সংক্রান্ত ব্যাপারে নতুন শিক্ষার্থীদের সাহায্য করতে।

উত্তরা ইউনিভার্সিটিতে ফ্যাশন ডিজাইনিং ডিপার্টমেন্টে ভর্তি হতে এসেছেন মো. তাহসিন আহমেদ জিহাদ নামের এক শিক্ষার্থী। তিনি বলেন, আমি ২০২২ সালে মানবিক বিভাগ থেকে এইচএসসি পাস করেছি। এ ইউনিভার্সিটির ফ্যাশন ডিজাইনিং বিষয়ে আমার পরিচিত অনেকে পড়ছেন। তারা বলেছেন এটা খুব ভালো একটা সাবজেক্ট। আর এখানে পড়ানোর মানও খুব ভালো। তাই এখানে অ্যাডমিশন নিচ্ছি।

ভর্তি মেলা কমিটির কনভেনার ও ইউনিভার্সিটির ব্যবসা প্রশাসন বিভাগের চেয়ারম্যান কাজী তারেক উল্লাহ বলেন, অ্যাডমিশন ফেয়ারে আমরা স্টুডেন্টদের ওয়ান স্টপ সার্ভিস দিয়ে থাকি। প্রতিবছর আমরা একটা অ্যাডমিশন শেয়ার করে থাকি। আর সেখানে আমরা সর্বোচ্চ পরিমাণ ওয়েভার দিয়ে থাকি স্টুডেন্টদের। আমরা মেরিট ভিত্তিক স্কলারশিপও দিয়ে থাকি। পাশাপাশি অ্যাডমিশন ফেয়ার উপলক্ষে ওয়েভার দিয়ে থাকি। যেহেতু আমরা স্থায়ী ক্যাম্পাসে স্থানান্তরিত হয়ে যাব তাই অ্যাডমিশন ফেয়ার আমাদের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এ উপলক্ষে আমরা শিক্ষার্থীদের বড় ধরনের ছাড় দিচ্ছি।

উত্তরা ইউনিভার্সিটির ডিরেক্টর ব্র্যান্ড কমিউনিকেশন ও ট্রিপল-ই ডিপার্টমেন্টে প্রেফেসর ড. মো. শাহরুখ আদনান খান বলেন, আমাদের ইউনিভার্সিটিতে পাঁচটা স্কিলে ১৪টি বিভাগের ৩৫টা প্রোগ্রাম রয়েছে। এ সবগুলো প্রোগ্রামেই আমরা ভর্তি ডিসকাউন্ট দিয়ে থাকি। এসএসসি এবং এইচএসসি উভয় পরীক্ষায় যারা জিপিএ ৫ পেয়েছেন তাদের জন্য শতভাগ স্কলারশিপের ব্যবস্থা রয়েছে। সর্বনিম্ন ৩০ থেকে ১০০ শতাংশ পর্যন্ত স্কলারশিপ শিক্ষার্থীরা পাবেন। মোট কথা একই ছাদের নিচে শিক্ষার্থীরা অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ থেকে শুরু করে সব ধরনের সার্ভিস পেয়ে যাবেন।

//