রাবির কোনো শিক্ষার্থীর মৃত্যু হলে পরিবার পাবে ২ লাখ টাকা


RU Correspondent | Published: 2022-06-28 18:54:32 BdST | Updated: 2022-08-14 22:21:39 BdST

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) নিয়মিত সব শিক্ষার্থীকে স্বাস্থ্য ও জীবন বিমার আওতায় আনা হচ্ছে। বছরে এককালীন ২৫০ টাকার বিনিময়ে ১ জুলাই থেকে তালিকাভুক্ত যে কোনো হাসপাতালে চিকিৎসা নেওয়ার সুযোগ পাবেন তারা। কোনো শিক্ষার্থীর মৃত্যু হলে তার পরিবার পাবেন ২ লাখ টাকা।

মঙ্গলবার (২৮ জুন) দুপুর ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ তাজউদ্দীন আহমেদ সিনেট ভবনে স্বাস্থ্য ও জীবন বিমা প্রকল্প সংক্রান্ত অনুষ্ঠানে এসব তথ্য জানানো হয়।

 

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. গোলাম সাব্বির সাত্তারের সভাপতিত্বে এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন উপ-উপাচার্য, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের বিভিন্ন কর্মকর্তা, বিভিন্ন বিভাগের সভাপতি ও শিক্ষক-শিক্ষার্থী এবং জেনিথ ইসলামী লাইফ ইনস্যুরেন্স লিমিটেডের কর্মকর্তা।

অনুষ্ঠানে বলা হয়েছে, রাবিতে অধ্যয়নরত নিয়মিত শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য ও জীবন বিমা প্রকল্পটি ১ জুলাই থেকে শুরু হবে। এর জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়মিত সব শিক্ষার্থীকে বাৎসরিক প্রিমিয়াম ২৫০ টাকা ভর্তি ফির সঙ্গে দিতে হবে।

বিমার আওতায় একজন শিক্ষার্থী হাসপাতালে ভর্তিকালীন চিকিৎসার ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ ৮০ হাজার টাকার সুযোগ সুবিধা পাবেন। এ টাকা প্রতি তিন মাস পরপর বছরে চারবার পেতে পারেন। কোনো শিক্ষার্থীর মৃত্যু হলে তার অভিভাবক ২ লাখ টাকা পাবেন।

এছাড়া বহির্বিভাগের চিকিৎসার ক্ষেত্রে একজন শিক্ষার্থী বছরে ২০ হাজার টাকা পর্যন্ত পাবেন। একদিনের বিল হলেও ২০ হাজার টাকা পাবেন। আবার প্রতিমাসে বা একাধিকবার কনসালটেন্সি ফি, মেডিকেল ফি, প্যাথলজি ফি ইত্যাদি বাবদও এ অর্থ নিতে পারবেন। কোনো সদস্যের মৃত্যু হলে অথবা পড়াশোনা শেষ হলে জীবন বিমার আওতা থেকে সমাপ্তি ঘটবে।

 

বিমা প্রকল্পে অংশ নিতে সব নিয়মিত শিক্ষার্থীদের ডাচ-বাংলা মোবাইল ব্যাংকিং রকেট অ্যাকাউন্ট বা ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলতে হবে। অনলাইন পদ্ধতিতে বিমা দাবির প্রক্রিয়াটি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে পাওয়া যাবে।

প্রকল্পটি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ও জেনিথ ইসলামী লাইফ ইনস্যুরেন্স লিমিটেড যৌথভাবে পরিচালনা করবে।